অনেক আগে বিটিভিতে জুয়েল আইচ এর মন মাতানো ম্যাজিক শো দেখাতো। জুয়েল আইচ খরগোসকে ফলে রুপান্তর করছেন, হ্যাট থেকে কবুতর বের করছেন, যেকোনো ব্যক্তিকে টেবিলের উপর শুয়িয়ে উপর থেকে হাত নেড়ে নেড়ে সেই ব্যক্তিকে শূন্যে ভাসাচ্ছেন আবার কাউকে একটা বক্স চেম্বারের ভিতর ঢুকিয়ে গায়েব করে দিচ্ছেন। তার ম্যাজিক বা ভেলকিবাজি দেখে লোকে তাজ্জব বনে যেতো। বাংলাদেশের জুয়েল আইচ ছাড়াও বিশ্বে অনেক বিখ্যাত বিখ্যাত ভেলকিবাজদের কথা কে না জানে? তাদের কি এমন অলৌকিক ক্ষমতা রয়েছে যে তারা বিভিন্ন যাদু দেখাতে পারে কিন্তু আমরা পারি না? তাদের কিসের এত প্রতিভা?

প্রতিভা শুধু ট্রিকস এর। যাদু দেখাতে কিছু ট্রিকস জানতে হয় আর সাথে লাগে সেই ট্রিকসগুলো খুব দ্রুততার সাথে প্রয়োগ করার ক্ষমতা। আজ আমরা এমন কিছু ম্যাজিক ট্রিকস শিখবো যা দিয়ে হয়তো বড় কোনো ভেলকিবাজের খ্যাতি পাবো না কিন্তু আমাদের আশপাশের মানুষ অবশ্যই অবাক হবে।

১. গ্লাস এবং কয়েন ট্রিকসঃ

গ্লাস এবং কয়েন ট্রিকস

আপনি টেবিলে একটা কাগজের উপর একটি গ্লাস রাখলেন এবং তার পাশে একটি কয়েন বা ধাতব মূদ্রা রাখলেন। আপনি গ্লাসটি সরিয়ে মূদ্রার উপর রাখলেন এবং মূদ্রাটি গায়েব হয়ে গেলো! কিভাবে হলো? মূদ্রা তো গ্লাসের ভেতর দিয়ে দেখা যাওয়ার কথা। গায়েব হয়ে গেলো কেনো? কোথায় গেলো?

আপনি ম্যাজিক ট্রিকস শুরু করার আগে টেবিলের উপর রাখা কাগজের মতো একই রকম আর একটি কাগজ নিন। যে গ্লাসটি ব্যবহার করবেন তার মুখের সমান মাপ দিয়ে কাগজটি গোল করে কাটুন এবং আঠা বা গাম দিয়ে কাগজটিকে গ্লাসের মুখের সাথে আটকে দিন। টেবিলে আরেকটা একই রকম কাগজ রাখুন গ্লাসের যে অংশটিতে কাগজ আটকিয়েছেন সেই অংশটি ওই কাগজের উপর রাখুন এবং তার পাশে একটু গ্যাপ দিয়ে একটি কয়েন রাখুন। যাদু দেখানোর সময় গ্লাসটি যখন সরিয়ে কয়েনের উপর রাখবেন তখন গ্লাসটি উচু করে সরাবেন না, টেনে সরাবেন এবং কয়েনের উপর প্লেস করবেন। এতে করে কয়েনটি গ্লাসের সাথে আটকে থাকা কাগজের নিচে চাপা পরে যাবে এবং বাহির থেকে দেখলে মনে হবে মূদ্রাটি গায়েব হয়ে গেছে। খুব সহজ, তাই না?

২. দন্ড এবং ফুল ট্রিকসঃ

দন্ড এবং ফুল

একজন ম্যাজিশিয়ান একটা কালো দন্ড হাতে নিলো, টেবিলের উপর একটা একটা কালো পাত্র রাখা ছিলো। ম্যাজিশিয়ান দন্ডটি দিয়ে পাত্রে টোকা দিলেন আর ম্যাজিক! পাত্র উপর ফুল বের হলো। দন্ড থেকে কিভাবে ফুল বের হয়? কিভাবে সম্ভব? আপনিও পারবেন শুধু ট্রিকস এর ব্যাপার।

ALSO READ  পিতার মহীরুহ - Rifaat Ahsan Sadat : 3rd Place Winner

একটা কালো প্লাস্টিকের দন্ড নিন যেটার বাহির থেকে বোঝার উপায় নেই যে ভেতরে ফাঁকা। এবার একটি লম্বা স্টিক ধরনের ফুলের নিচে ম্যাগনেট লাগিয়ে নিন। ফুলটি এমন মাপের হতে হবে যেনো কালো দন্ডটির ভেতরে অনায়াসে এটি ঢুকানো যায়। ফুলটির ম্যাগনেটের পাশটি দন্ডের নিচের দিকে রাখুন এবং টেবিলে যে পাত্রটি রাখবেন তার নিচেও একটি ম্যাগনেট দিন। এবার দর্শকের সামনে পাত্রের উপরের চারিদিকে দন্ডটি ঘোরান। ঘোরাতে ঘোরাতে পাত্রে দন্ডটির যে পাশে ফুলের ম্যাগনেটটি রয়েছে সেই পাশটি টোকা দিন। পাত্রে ম্যাগনেটের আকর্ষণে ফুলটি নিমেষেই দন্ড থেকে বের হয়ে আসবে এবং দেখে মনে হবে দন্ড থেকে ফুল বের হলো যাদুর মাধ্যমে।

৩. আঙুল কাটা ম্যাজিক ট্রিকসঃ

আঙুল কাটা ম্যাজিক ট্রিকস

ম্যাজিশিয়ান তার এক হাতের আঙুলগুলো রেখেছে এবং আরেক হাতে এন্টিকাটার দিয়ে তার একটি আঙুল কাটছে। আঙুল থেকে গলগল করে রক্ত পরছে কিন্তু ম্যাজিশিয়ান হাসি মুখে দর্শকদের দিকে তাকিয়ে আছে। কিভাবে? ম্যাজিশিয়ানের কি একটুও ব্যাথা লাগছে না? না ব্যথা লাগছে না। কারন তিনি আঙুল কাটেনই নি।

এই ট্রিকসের জন্য আমাদের লাগবে একটি এন্টিকাটার, একটি খালি জুসের প্যাকেট, আঠা এবং লাল এর অথবা সস। জুসের খালি প্যাকেটিকে ভাজ খোলার মতো করে ছিড়ে নিন এবং ভেতরের পাশটি উপরে নিন। তারপর এন্টিকাটারের ব্লেডটি এন্টিকাটার থেকে সাবধানতার সাথে খুলে নিন। ব্লেডের মাপ দিয়ে জুসের প্যাকেট থেকে দুটি অংশ কেটে নিন এবং আঠা দিয়ে জোরা দিন। খেয়াল রাখবেন প্যাকেটের ভেতরের অংশ সাদা বা ধূসর থাকে তাই এটি দূর থেকে দেখতে ব্লেডের মতো দেখা যায় সে জন্য এই অংশকে উপরে এবং জুসের ছাপা অংশ ভেতরে রাখতে হবে। তারপর জোরা দেওয়া অংশটি এন্টিকাটার এর গায়ের মতো খাজ কেটে নিন এবং এন্টিকাটার এর সাথে আটকে নিন। হাতের যে আঙুল কেটে ফেলছেন বলে অভিনয় করবেন সেই অংশ এর মাপ নিয়ে এই কাগজ (জুসের প্যাকেট দিয়ে তৈরি ব্লেড) কেটে নিন। এবার আঙুলে কিছু সস বা রং মেখে এবং কাগজের ব্লেড দিয়ে তৈরি এন্টিকাটারের যে অংশটি আঙুলের মাপে কেটেছেন তা সসের উপরে সেট করুন এবং এমন ভাবে নাড়াচাড়া করুন যেনো মনে হয় সত্যি আপনি আঙুল কাটছেন।

৪. হোয়াইট চক-হ্যান্ড ট্রিকসঃ

হোয়াইট চক-হ্যান্ড ট্রিকস

আপনি আপনার বন্ধুকে পাশে দাড় করেয়েছেন সাদা চক দিয়ে একটি ম্যাজিক ট্রিকস দেখানোর জন্য। আপনার হাতে চক আছে আপনার বন্ধুকে বললেন তার দুই হাত উপুর করে সামনে পেতে দিতে। তারপর আপনি তাকে বললেন তার হাত অনেক উঁচুতে এবং ধরে একটু নিচে নামালেন। তারপর আপনার হাতের তালুতে চক এর একটা ফোটা দিলেন। দর্শক এবং আপনার বন্ধুকে দেখালেন। আপনার হাত থেকে চক এর দাগ মুছে ফেললেন। এবার বন্ধুকে বললেন হাত উল্টো করতে। বন্ধু হাত উল্টো করতেই তার হাতের তালুতে ঠিক আপনার হাতের তালুতে যেমন চকের দাগ ছিলো তেমন একটি দাগ! আপনিতো তার হাতে চকের কোনো ফোটা দেন নি। তাহলে কিভাবে আপনি চকের ফোটা মুখে ফেলার সাথে সাথে তার হাতে চকের ফোটা চলে গেলো?

ALSO READ  অভিনয় - Rifat Raiyan : Editor's Pick

এই ট্রিকসের জন্য আপনার অবশ্যই একজন সহযোগী লাগবে এবং লাগবে একটি চক। সহযোগীর সাথে ম্যাজিক ট্রিকস শুরু করার আগে আপনি গোপনে নিজের আঙুলে কিছুটা চক ঘষে নিন। তারপর আপনার সহযোগী বন্ধুটিকে বলুন তার হাত যেনো উপুড় করে মেলে ধরে। এবার আপনি তাকে বলুন তার হাত বেশি উঁচুতে উঠিয়ে ফেলেছে এবং হাতটি ধরে একটু নিচে নামিয়ে দেওয়ার সময় চক মেখে রাখা আঙুলটি তার হাতের তালুতে একটু চাপ দিন। এমনভাবেই চাপ দিতে হবে যেনো সে না বোঝে। এখন আপনি আপনার ঠিক ওই হাতের ওই বরাবর চক ঘষুন সবার সামনে এবং মুছে ফেলুন। তার হাত উল্টো করতে বলুন এবং ম্যাজিক!

৫. কলমের কালির দাগ গায়েব করা ম্যাজিকঃ

কলমের কালির দাগ গায়েব করা ম্যাজিক

আপনার বন্ধুর নতুন জামায় আপনি দুষ্টুমি করে কলমের কালি ফেললেন। আপনার বন্ধু রেগে মেগে আগুন কারন সে কিছুদিন আগেই এই জামাটি কিনেছে বা এটা তার শখের জামা। কিছুক্ষণ পর আপনার বন্ধু দেখলো তার জামায় কোনো দাগ নেই। তাজ্জব ব্যাপার তো!

বাজারে কলমের কালির মতো দেখতে এক প্রকার ভ্যানিসিং ইনক পাওয়া যায়, এর সাথে লাগবে একটি টিপ কলম। টিপ কলমের কালি ফেলে দিয়ে তাতে ভ্যানিসিং ইনক ভরে নিন। টিপ কলমে চাপ দিন, দেখুন ঠিক মতো কাজ করছে কিনা। কাজ করছে না? আপনি কি উপরের দিকে কলমের মুখ রেখে চাপ দিয়েছেন? এটা করা যাবে না। কলমের মুখ নিচের দিকে একটু কোণাকুণি ধরুন। এবার চাপ দিন। দেখুন কালি বের হচ্ছে। এই কালি ৫ মিনিটের মধ্যে গায়েব হয়ে যায় সেজন্য জামা কাপড়ে দাগ থাকে না। বন্ধুদের নতুন জামায় এই কালি দিয়ে দাগ ফেলে তাদের জামা থেকে দাগ গায়ে করে দিন এবং তাদের চমকে দিন।

এই ছোট ছোট, সহজ ম্যাজিক ট্রিকসগুলো দিয়ে সবাইকে চমকে দিন এবং সবার কাছে নিজের ভেলকিবাজি প্রতিভার আত্মপ্রকাশ করুন। দেখবেন ছোট-বড় সকলে আপনার ফ্যান হয়ে গেছে।
What’s your Reaction?
+1
+1
31
+1
+1
+1
21
+1
+1
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x